তুমি আমার কিনা!

একদিন খুব ভোরে, হয়তো আরো বেশি সকালে
কিংবা হেলে পড়া সকালের বারান্দায় বসে
খুব করে ভেবে নেব
জেনে নেব
তুমি আমার কিনা।

প্রশ্রয়ের ক্ষেত্রে মাঝে মাঝে ডুবে যেতে চাই
আকণ্ঠ
তুমি কস্তুরীর ন্যায় খুঁজে খুঁজে তুলে নেবে
আর খোপায় গুঁজে গুনগুন করে সুর ভাজবে ঠোঁটে
আমি জড়িয়ে যেতে চাইবো তোমার মৃদু হাসির আবরণে।

একদিন তোমার নাকফুল হয়ে থাকতে চাই
দিনমান দেখে থাকতে চাই নির্নিমেষে
তোমার নাকের বিন্দুবিন্দু ঘামেরা জড়ো হলে সখ্যতা গড়তে চাই
তাদের সাথে।
একদান দাবা খেলে হেরে যেতে চাই
তাদের সাথে
কারন তাদের জিতে যাওয়াতেই তোমার জয়-জয়কার।

একদিন লাল টুকটুকে আগুন রঙা লিপস্টিক হয়ে
জড়িয়ে থাকতে চাই তোমার ঠোঁটে
চুমুকে চুমুকে ভরিয়ে তুলতে চাই তোমার সাদা রুমাল
যেখানে ছোপ ছোপ লাল লিপস্টিক মন খারাপ করে বসে আঁকে
তোমার ঠোঁট।

একদিন তোমার ঠোঁটের সুললিত ভাজে বসে
এক্কা দোক্কা খেলতে চাই
শীতের শুষ্কতায় চামড়া ওঠে যাওয়া কাতরতায়
একটু রক্তিম হয়ে জমে যেতে চাই
তোমার শুষ্ক ঠোঁটে।

কী ভাবছ?
আজ আমার কী হলো!
আজ প্রেমের অতলে তোমায় ডুবিয়ে দিতে চাই
সাথে আমিও।
ডুবুডুবু চৌবাচ্চায় ভিজে থাকতে চাই আজীবন
শুধু তোমায় নিয়ে।

-জামান একুশে